শিক্ষিকাকে নির্যাতন, কারাগারে জায়গা হলো শিক্ষকের

শনিবার, ২ জুন, ২০১৮ ৩:০৩:৪৮ অপরাহ্ণ
0
120

চুয়াডাঙ্গা প্রতিনিধি

শিক্ষিকা স্ত্রীর দায়ের করা মামলায় কারাগারে জায়গা হলো চুয়াডাঙ্গার আলমডাঙ্গা পাইলট মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়ের শিক্ষক সমীর কুমার সাহার।

গত সোমবার সমীর কুমার সাহা চুয়াডাঙ্গার আদালতে উপস্থিত হয়ে জামিনের আবেদন করেন। আদালত তার জামিনের আবেদন নাকচ করে জেল হাজতে প্রেরণের নির্দেশ দেন।

মামলা সূত্রে জানা গেছে, আলমডাঙ্গা উপজেলার রথতলার বিজন সাহার ছেলে সমীর কুমার সাহার সঙ্গে ৯ বছর আগে বিয়ে হয় সৌমেন্দ্রনাথ সাহার মেয়ে সীমা সাহার। সীমা আলমডাঙ্গা শহরের মাদ্রাসাপাড়ার সৌমেন্দ্রনাথ সাহার মেয়ে।  সীমা সাহাও স্কুল শিক্ষিকা।

এজাহার সূত্রে জানা যায়, বিয়ের পর থেকে সমীর কুমার সাহা ও তার পরিবার যৌতুকের দাবিতে সীমা রাণী সাহাকে নানাভাবে শারীরিক ও মানসিক নির্যাতন করে আসছিলেন। মোটা অংকের টাকা যৌতুকের দাবিতে বিভিন্ন সময় তাকে মারধর করা হতো বলে দাবি করেছেন সীমা রাণী সাহা।

তিনি জানান, কন্যা সন্তান হওয়ার পর নির্যাতনের মাত্রা বেড়ে যায়। এক পর্যায়ে সমীর স্ত্রীকে তার বাবার বাড়ি রেখে আসেন। দেড় বছর অতিক্রান্ত হলেও স্ত্রীর কোন খোঁজ নেননি সমীর। অত্যাচার সইতে না পেরে গত ৫ এপ্রিল চুয়াডাঙ্গার সংশ্লিষ্ট আদালতে যৌতুক আইনে সমীর কুমার সাহার বিরুদ্ধে মামলা করেন সীমা রাণী সাহা।