একনজরে দেশের ৫০তম প্রস্তাবিত বাজেট

যুগের কন্ঠ ডেস্ক
  • আপডেট টাইম : বৃহস্পতিবার, ৩ জুন, ২০২১
::নিজস্ব প্রতিবেদক::

করোনা মহামারিতে ২০২১-২২ অর্থবছরের বাজেট হচ্ছে মানুষের জীবন-জীবিকার রক্ষাকে প্রাধান্য দিয়ে। এটি দেশের ৫০তম বাজেট। প্রথম বাজেট ছিলো ১৯৭২-৭৩, যা পেশ করেন তাজউদ্দীন আহমদ, ৭৮৬ কোটি টাকা। সবশেষ ৫০তম বাজেট ২০২১-২২ অর্থবছরের প্রস্তাবিত বাজেটের আকার হচ্ছে ৬ লাখ ৩ হাজার ৬৮১ কোটি টাকা। যা আজ বৃহস্পতিবার উপস্থাপন করছেন আ হ ম মুস্তফা কামাল। স্বাধীনতার ৫০ বছরে দেশের বাজেটের আকার বেড়েছে ৭৬৭ গুণ।

একনজরে বাংলাদেশের প্রস্তাবিত ৫০তম বাজেট

৫০তম বাজেটের আকার ৬ লাখ ৩ হাজার ৬৮১ কোটি টাকা। এর রাজস্ব লক্ষ্যমাত্রা হচ্ছে ৩ লাখ ৩০ হাজার কোটি টাকা। বাজেটের ঘাটতি নির্ধারণ করা হয়েছে ২ লাখ ১৪ হাজার ৬৮১ কোটি টাকা, যা জিডিপি’র ৬.২ শতাংশ।

বার্ষিক উন্নয়ন কর্মসূচি: ২ লাখ ২৫ হাজার ৩২৪ কোটি টাকা

প্রবৃদ্ধি লক্ষ্যমাত্রা: ৭ দশমিক ২ শতাংশ

মূল্যস্ফীতি: ৫ দশমিক ৩ শতাংশ

করমুক্ত আয়ের সীমা: বার্ষিক ৩ লাখ টাকা

করোনা মোকাবিলা: ১০ হাজার কোটি টাকার তহবিল

ঘাটতি অর্থায়নে বৈদেশিক উৎস আসবে: ১ লাখ ১ হাজার ২২৮ কোটি টাকা এবং অভ্যন্তরীণ উৎস হতে ১ লাখ ১৩ হাজার ৪৫২ কোটি টাকা।

অভ্যন্তরীণ উৎস: ব্যাংক ব্যবস্থা হতে সংগৃহীত হবে ৭৬ হাজার ৪৫২ কোটি টাকা এবং সঞ্চয়পত্র ও অন্যান্য ব্যাংক-বহির্ভূত খাত হতে আসবে ৩৭ হাজার ১ কোটি টাকা।

শিক্ষা খাতে বরাদ্দ: প্রাথমিক ও গণশিক্ষা এবং শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের জন্য বরাদ্দ ৭১ হাজার ৯৫১ কোটি টাকা

প্রসঙ্গত, এ পর্যন্ত ৪৯টি বাজেট উত্থাপন করেছেন ১২ জন ব্যক্তি। তাদের মধ্যে একজন রাষ্ট্রপতি, ৯ জন অর্থমন্ত্রী ও দুজন অর্থ উপদেষ্টা। ব্যক্তি হিসেবে সবচেয়ে বেশি ১২টি করে বাজেট উত্থাপন করেছেন প্রয়াত অর্থমন্ত্রী এম সাইফুর রহমান এবং আবুল মাল আবদুল মুহিত। এর মধ্যে আবুল মাল আবদুল মুহিত আওয়ামী লীগের হয়ে রেকর্ড টানা ১০টি বাজেট উপস্থাপন করেন।

নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর..