ঢাকা ০৭:০৩ অপরাহ্ন, রবিবার, ০২ অক্টোবর ২০২২, ১৭ আশ্বিন ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

হাজারীবাগে মাদ্রাসায় শিশু ধর্ষণ, শিক্ষক গ্রেপ্তার

  • প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৩:১৭:০৪ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২২ জুন ২০২১
  • ১৭ বার পড়া হয়েছে
::নিজস্ব প্রতিবেদক::

রাজধানীর হাজারীবাগের জামিয়া মারিফুল কোরআনিয়া মাদ্রাসায় ৭ বছরের কন্যা শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগে এক শিক্ষককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। হাজারীবাগ থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) কাওসার আহমেদ বিষয়টি বাংলাদেশ জার্নালকে নিশ্চিত করেছেন।

কাওসার আহমেদ বলেন, সোমবার সন্ধ্যায় শিশুটি মাদ্রাসায় পড়তে গেলে শিক্ষক জুবায়ের হোসেন (২৪) তাকে তার কক্ষে নিয়ে গিয়ে যৌননিপীড়ন করে। এরপর কাউকে না বলার হুমকি দেয়। এঘটনায় অভিযোগ পেয়ে ওই শিক্ষককে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

এবিষয়ে শিশুটির মা বলেন, আমার মেয়ে সন্ধ্যায় পড়তে গেলে রাতে হুজুর জুবায়ের পাশের রুমে নিয়ে গিয়ে হাত মুখ চেপে ধরে তাকে যৌন নিপীড়ন করে। পরে আমার মেয়ে বাসায় এসেও কোন কিছু বলেনি। তবে আমি তার শারীরিক কিছু অবস্থা দেখে জানতে চাইলে তার মেয়ে ঘটনা খুলে বলে। পরে বিষয়টি হাজারীবাগ থানায় জানান। শিশুটির বাবা বাদী হয়ে মাদ্রাসা শিক্ষকের বিরুদ্বে হাজারীবাগ থানায় একটি মামলা করেছেন বলে তিনি জানান।

এদিকে মেয়েটিকে শারীরিক পরীক্ষার জন্য আজ ঢাকা মেডিক্যালে কলেজ হাসপাতালে নিয়ে আসা হলে জরুরি বিভাগের চিকিৎসক তাকে ওসিসিতে ভর্তি করেন।

এ ঘটনায় জুবায়েরকে আটক করে আদালতে পাঠানো হয়েছে আর শিশুটিকে শারীরিক পরীক্ষার জন্য ওসিসিতে ভর্তি করা হয়েছে।

ট্যাগস :

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published.

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য

জনপ্রিয় সংবাদ

হাজারীবাগে মাদ্রাসায় শিশু ধর্ষণ, শিক্ষক গ্রেপ্তার

আপডেট সময় : ০৩:১৭:০৪ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২২ জুন ২০২১
::নিজস্ব প্রতিবেদক::

রাজধানীর হাজারীবাগের জামিয়া মারিফুল কোরআনিয়া মাদ্রাসায় ৭ বছরের কন্যা শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগে এক শিক্ষককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। হাজারীবাগ থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) কাওসার আহমেদ বিষয়টি বাংলাদেশ জার্নালকে নিশ্চিত করেছেন।

কাওসার আহমেদ বলেন, সোমবার সন্ধ্যায় শিশুটি মাদ্রাসায় পড়তে গেলে শিক্ষক জুবায়ের হোসেন (২৪) তাকে তার কক্ষে নিয়ে গিয়ে যৌননিপীড়ন করে। এরপর কাউকে না বলার হুমকি দেয়। এঘটনায় অভিযোগ পেয়ে ওই শিক্ষককে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

এবিষয়ে শিশুটির মা বলেন, আমার মেয়ে সন্ধ্যায় পড়তে গেলে রাতে হুজুর জুবায়ের পাশের রুমে নিয়ে গিয়ে হাত মুখ চেপে ধরে তাকে যৌন নিপীড়ন করে। পরে আমার মেয়ে বাসায় এসেও কোন কিছু বলেনি। তবে আমি তার শারীরিক কিছু অবস্থা দেখে জানতে চাইলে তার মেয়ে ঘটনা খুলে বলে। পরে বিষয়টি হাজারীবাগ থানায় জানান। শিশুটির বাবা বাদী হয়ে মাদ্রাসা শিক্ষকের বিরুদ্বে হাজারীবাগ থানায় একটি মামলা করেছেন বলে তিনি জানান।

এদিকে মেয়েটিকে শারীরিক পরীক্ষার জন্য আজ ঢাকা মেডিক্যালে কলেজ হাসপাতালে নিয়ে আসা হলে জরুরি বিভাগের চিকিৎসক তাকে ওসিসিতে ভর্তি করেন।

এ ঘটনায় জুবায়েরকে আটক করে আদালতে পাঠানো হয়েছে আর শিশুটিকে শারীরিক পরীক্ষার জন্য ওসিসিতে ভর্তি করা হয়েছে।