শিশুকে ‘ধর্ষণ ও ভিডিও ধারণ’, প্রধান শিক্ষক গ্রেপ্তার

বান্দরবান প্রতিনিধি;
  • প্রকাশিত: ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১:২৭ অপরাহ্ণ | আপডেট: ৩ সপ্তাহ আগে
সংগৃহীত

বান্দরবানের রুমা উপজেলায় ধর্ষণ ও মোবাইলে অশালীন ভিডিও ধারণের অভিযোগে রুমা জুনিয়র হাইস্কুলের প্রধান শিক্ষক সমর কান্তি দত্তকে (৫৬) গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। গ্রেপ্তারকৃত ওই শিক্ষকের বাড়ি চট্টগ্রাম জেলার লোহাগাড়া উপজেলায়।

শুক্রবার রাতে রুমা বাজার এলাকা থেকে অভিযুক্ত শিক্ষককে গ্রেপ্তার করা হয়। শনিবার সমর কান্তি দত্তকে আদালতে সোপর্দ করা হয়।

স্থানীয় বাসিন্দারা অভিযোগ করে বলেন, সমর কান্তি দত্ত দীর্ঘদিন ধরে রুমা জুনিয়র হাইস্কুলের ছাত্রীদের পরীক্ষায় পাস করিয়ে দেওয়াসহ বিভিন্ন প্রলোভন দেখিয়ে অনৈতিক প্রস্তাব দিয়ে আসছিলেন, তবে ভয়ে অনেকে বিষয়টি প্রকাশ করেননি।

এজাহারসূত্রে জানা গেছে, ধর্ষণের শিকার ছাত্রী সমর কান্তি দত্তের বাড়িতে প্রাইভেট পড়ে। প্রাইভেট পড়ানোর সময় সমর কান্তি দত্ত ভুক্তভোগীকেসহ সেখানে পড়তে আসা অন্য ছাত্রীদের বিভিন্নভাবে উত্যক্ত ও যৌন হয়রানি করতেন। বৃহস্পতিবার (২৩ আগষ্ট) প্রাইভেট পড়ানো শেষে অন্য ছাত্রীদের চলে যেতে দিলেও ভুক্তভোগী ছাত্রীকে কাজ আছে বলে অপেক্ষা করতে বলেন সমর কান্তি দত্ত।

পরে শিক্ষক ওই ছাত্রীকে ধর্ষণ করেন এবং ভিডিও ধারণ করেন। একই সঙ্গে অভিযুক্ত শিক্ষক ধর্ষিতার মোবাইলে ধারণকৃত ভিডিও পাঠিয়ে ব্ল্যাকমেইল করার চেষ্টা করেন।

বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির ভারপ্রাপ্ত সভাপতি জিংএংময় বম বলেন, ‘প্রধান শিক্ষকের অনৈতিক আচরণের অভিযোগের বিষয়টি দীর্ঘদিন ধরে শুনে আসছি। তবে কোনো শিক্ষার্থী সাহস করে কথা বলতে পারেনি।’

রুমা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আবুল কাশেম চৌধুরী বলেন, শুক্রবার ভিক্টিম ও তার আত্মীয়রা পর্ণোগ্রাফি এবং শিশু ও নারী নির্যাতন আইনে মামলা করেন। ওই দিনই অভিযুক্ত শিক্ষককে প্রেপ্তার করা হয়।

শেয়ার করুন

এই সম্পর্কিত আরও খবর...