যে কারণে কপ-২৬ সম্মেলনের সময় বাড়লো

আন্তর্জাতিক ডেস্ক;
  • প্রকাশিত: ১৩ নভেম্বর ২০২১, ৭:২১ পূর্বাহ্ণ | আপডেট: ২ সপ্তাহ আগে

জলবায়ু আন্দোলনকারীরা ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন ও মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের মুখোশ পরে বিক্ষোভ দেখান। ছবি: আল জাজির

জলবায়ু পরিবর্তন মোকাবেলায় বিশ্ব নেতারা নির্ধারিত সময়ের মধ্যে উপযুক্ত একটি চুক্তিতে পৌঁছাতে না পারায় অতিরিক্ত সময়ে গড়িয়েছে স্কটল্যান্ডের গ্লাসগোতে অনুষ্ঠিত কপ-২৬ সম্মেলন।

সম্মেলনের পর্দা নামার কথা ছিল শুক্রবার। কিন্তু কোনো সমঝোতা না হওয়ায় তা স্থানীয় সময় শনিবার পর্যন্ত গড়ায়। এদিন আবারও আলোচনায় বসেন বিশ্বের প্রায় ২০০ দেশের প্রতিনিধি।

আল জাজিরার প্রতিবেদনে জানা যায়, শুক্রবার দিনের শুরুতে জাতিসংঘ জলবায়ু সম্মেলন কপ-২৬ এর একটি খসড়া চুক্তি চূড়ান্ত করে প্রকাশ করা হয়।

তবে বৈশ্বিক উষ্ণতা ১ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াসের মধ্যে সীমাবদ্ধ রাখতে একটি চূড়ান্ত চুক্তিতে পৌঁছানোর বিষয়টি এখনো ঝুঁলে আছে। বিশেষ করে কয়লা ও জ্ববাশ্ম জ্বলানীর ব্যবহার কমানো নিয়ে উপযুক্ত সমঝোতা আসেনি।

এ ছাড়া জলবায়ু ক্ষতিগ্রস্ত অনুন্নত ও উন্নয়নশীল দেশগুলোকে আর্থিক সহায়তা দেয়ার বিষয়টি নিয়ে জটিলতা রয়ে গেছে। জলবায়ু ক্ষতিগ্রস্ত বিশ্বের এমন অনেক দেশ রয়েছে, জলবায়ু পরিবর্তনে যাদের অবদান একেবারেই সামন্য। কিন্তু ক্ষতির বোঝা অনেক বেশি বহন করতে হচ্ছে তাদের।

কপ-২৬ সম্মেলনের প্রেসিডেন্ট অলোক শর্মা স্কটল্যান্ডের গ্লাসগোতে অনুষ্ঠিত ওই সম্মেলনে অংশ নেয়া বিশ্বের নানা দেশের প্রতিনিধিদের মতানৈক্য দূর করে একটি চুক্তিতে পৌঁছানোর আহ্বান জানিয়েছেন।

শেয়ার করুন

এই সম্পর্কিত আরও খবর...