ঢাকা ০৯:১৫ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৫ জুলাই ২০২৪, ৩১ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

‘সুবিধা বঞ্চিত শিশুদের ঈদ উপহার প্রদান করলো মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়’

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • আপডেট : ০৬:৫৪:৩৭ অপরাহ্ন, সোমাবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৩
  • / 97

মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে সুবিধা বঞ্চিত তিনশ শিশুদের ঈদের উপহার প্রদান করা হয়েছে। মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী ফজিলাতুন নেসা ইন্দ্রিরা প্রধান অতিথি হিসেবে বাংলাদেশ শিশু একাডেমি প্রাঙ্গণে শিশুদের হাতে ঈদ উপহার তুলে দেন।

সোমবার ১৭ এপ্রিল ঢাকায় বাংলাদেশ শিশু একাডেমি প্রাঙ্গণে মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের আয়োজনে ‘শিশু বিকাশ কেন্দ্র এবং পথশিশু পুনর্বাসন কর্মসূচির সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের ঈদ উপহার বিতরণ ও দোয়া মাহফিল’ অনুষ্ঠানে শিশুদের মাঝে ঈদ উপহার বিতরণ করা হয়। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. হাসানুজ্জামান কল্লোল।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে প্রতিমন্ত্রী ফজিলাতুন নেসা ইন্দিরা বলেন, মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের উদ্যোগে আজ শিশু বিকাশ কেন্দ্র এবং পথশিশু পুনর্বাসন প্রকল্পের সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের ঈদ উপহার দেওয়া হচ্ছে। যা অত্যন্ত শুভ উদ্যোগ। ঈদের নতুন পোশাক ও ইফতার সামগ্রী পেয়ে এই শিশুদের মুখে যে খুশির হাসি দেখছি তার মূল্য অনেক। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকারের লক্ষ্য কোন শিশু যেন, শিক্ষা, খাদ্য, চিকিৎসা ও তার অধিকার থেকে বঞ্চিত না হয়। সরকার শিশুদের শিক্ষা ও সুরক্ষা নিশ্চিত করছে। যেসকল শিশু ঝরে পড়েছে বা সুবিধাবঞ্চিত তাঁদের জন্য বিশেষ কার্যক্রম বাস্তবায়ন করছে। সর্বস্তরের ছাত্র-ছাত্রীদের উপবৃত্তি প্রদান করছে।

প্রতিমন্ত্রী ইন্দিরা বলেন, ইসলাম ধর্ম ও সকল ধর্মে এতিম ও সুবিধা বঞ্চিত শিশুদের কল্যানের জন্য হয়েছে। শিশুর শিক্ষা ও উন্নত জীবনের জন্য সরকারের পাশাপাশি নিকটাত্মীয়, বেসরকারি সংগঠন ও সমাজের বিত্তবান ব্যক্তিদের এগিয়ে আসতে হবে। আমরা সবাই যদি শিশুর কল্যাণে এগিয়ে আসি, তাহলে দেশের কোন শিশু তার সুবিধা ও অধিকার থেকে বঞ্চিত হবে না।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. হাসানুজ্জামান কল্লোল বলেন, পবিত্র রমজানে শিশুদের প্রতি ভালোবাসার শিক্ষা নিতে হবে। শিশুদের কল্যাণে আমাদের সবার একসাথে কাজ করতে হবে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার শিশুদের কল্যাণে বিভিন্ন কার্যক্রম বাস্তবায়ন করছে।

ঈদের উপহার পেয়ে শিশুরা জানায়, নতুন জামা-কাপড় পেয়ে তাঁরা অনেক খুশি। অন্য শিশুদের মতো তাঁদের এই ঈদ অনেক আনন্দের হবে। অনুষ্ঠানে শিশুরা হামদ – নাত পরিবেশন করে।

অনুষ্ঠানে শুভেচ্ছা বক্তব্য দেন অতিরিক্ত সচিব মো. মুহিবুজ্জামান ও স্বাগত বক্তব্য দেন শিশু একাডেমির মহাপরিচালক আনজীর লিটন। অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন জয়িতা ফাউন্ডেশনের ব্যবস্থাপনা পরিচালক আফরোজা খান, মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তরের মহাপরিচালক ফরিদা পারভীন, জাতীয় মহিলা সংস্থার নির্বাহী পরিচালক আবেদা আক্তারসহ মন্ত্রণালয় ও দপ্তর সংস্থার বিভিন্ন পর্যায়ের কর্মকর্তাবৃন্দ।

আলোচনা পর্বশেষে দেশ ও জাতির কল্যাণ এবং উত্তরোত্তর সমৃদ্ধি কামনা করে দোয়া করা হয়।

নিউজটি শেয়ার করুন

ট্যাগস :

‘সুবিধা বঞ্চিত শিশুদের ঈদ উপহার প্রদান করলো মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়’

আপডেট : ০৬:৫৪:৩৭ অপরাহ্ন, সোমাবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৩

মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে সুবিধা বঞ্চিত তিনশ শিশুদের ঈদের উপহার প্রদান করা হয়েছে। মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী ফজিলাতুন নেসা ইন্দ্রিরা প্রধান অতিথি হিসেবে বাংলাদেশ শিশু একাডেমি প্রাঙ্গণে শিশুদের হাতে ঈদ উপহার তুলে দেন।

সোমবার ১৭ এপ্রিল ঢাকায় বাংলাদেশ শিশু একাডেমি প্রাঙ্গণে মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের আয়োজনে ‘শিশু বিকাশ কেন্দ্র এবং পথশিশু পুনর্বাসন কর্মসূচির সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের ঈদ উপহার বিতরণ ও দোয়া মাহফিল’ অনুষ্ঠানে শিশুদের মাঝে ঈদ উপহার বিতরণ করা হয়। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. হাসানুজ্জামান কল্লোল।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে প্রতিমন্ত্রী ফজিলাতুন নেসা ইন্দিরা বলেন, মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের উদ্যোগে আজ শিশু বিকাশ কেন্দ্র এবং পথশিশু পুনর্বাসন প্রকল্পের সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের ঈদ উপহার দেওয়া হচ্ছে। যা অত্যন্ত শুভ উদ্যোগ। ঈদের নতুন পোশাক ও ইফতার সামগ্রী পেয়ে এই শিশুদের মুখে যে খুশির হাসি দেখছি তার মূল্য অনেক। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকারের লক্ষ্য কোন শিশু যেন, শিক্ষা, খাদ্য, চিকিৎসা ও তার অধিকার থেকে বঞ্চিত না হয়। সরকার শিশুদের শিক্ষা ও সুরক্ষা নিশ্চিত করছে। যেসকল শিশু ঝরে পড়েছে বা সুবিধাবঞ্চিত তাঁদের জন্য বিশেষ কার্যক্রম বাস্তবায়ন করছে। সর্বস্তরের ছাত্র-ছাত্রীদের উপবৃত্তি প্রদান করছে।

প্রতিমন্ত্রী ইন্দিরা বলেন, ইসলাম ধর্ম ও সকল ধর্মে এতিম ও সুবিধা বঞ্চিত শিশুদের কল্যানের জন্য হয়েছে। শিশুর শিক্ষা ও উন্নত জীবনের জন্য সরকারের পাশাপাশি নিকটাত্মীয়, বেসরকারি সংগঠন ও সমাজের বিত্তবান ব্যক্তিদের এগিয়ে আসতে হবে। আমরা সবাই যদি শিশুর কল্যাণে এগিয়ে আসি, তাহলে দেশের কোন শিশু তার সুবিধা ও অধিকার থেকে বঞ্চিত হবে না।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. হাসানুজ্জামান কল্লোল বলেন, পবিত্র রমজানে শিশুদের প্রতি ভালোবাসার শিক্ষা নিতে হবে। শিশুদের কল্যাণে আমাদের সবার একসাথে কাজ করতে হবে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার শিশুদের কল্যাণে বিভিন্ন কার্যক্রম বাস্তবায়ন করছে।

ঈদের উপহার পেয়ে শিশুরা জানায়, নতুন জামা-কাপড় পেয়ে তাঁরা অনেক খুশি। অন্য শিশুদের মতো তাঁদের এই ঈদ অনেক আনন্দের হবে। অনুষ্ঠানে শিশুরা হামদ – নাত পরিবেশন করে।

অনুষ্ঠানে শুভেচ্ছা বক্তব্য দেন অতিরিক্ত সচিব মো. মুহিবুজ্জামান ও স্বাগত বক্তব্য দেন শিশু একাডেমির মহাপরিচালক আনজীর লিটন। অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন জয়িতা ফাউন্ডেশনের ব্যবস্থাপনা পরিচালক আফরোজা খান, মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তরের মহাপরিচালক ফরিদা পারভীন, জাতীয় মহিলা সংস্থার নির্বাহী পরিচালক আবেদা আক্তারসহ মন্ত্রণালয় ও দপ্তর সংস্থার বিভিন্ন পর্যায়ের কর্মকর্তাবৃন্দ।

আলোচনা পর্বশেষে দেশ ও জাতির কল্যাণ এবং উত্তরোত্তর সমৃদ্ধি কামনা করে দোয়া করা হয়।