ঢাকা ০৯:২৪ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৩ জুলাই ২০২৪, ৮ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বিদিশা এরশাদ রাজনীতিতে আসছেন

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট : ০৩:৪৬:২০ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৬ জুন ২০২১
  • / 179
::নিজস্ব প্রতিবেদক::

জাতীয় পার্টির প্রতিষ্ঠাতা ও প্রয়াত রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদের সাবেক স্ত্রী ও বিদিশা ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান বিদিশা এরশাদ রাজনীতির আসছেন। তার রাজনীতিতে আসার বিষয়টিও ইতিবাচক হিসেবে জাপার একাধিক কেন্দ্রীয় নেতা

শনিবার বিকেলে জাতীয় প্রেসক্লাবে এরশাদের দ্বিতীয় মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত স্মরণসভায় রাজনীতিতে প্রত্যক্ষভাবে অংশ নেওয়ার ঘোষণা দেন বিদিশা এরশাদ।

তিনি বলেন, জাতীয় পার্টির অনেক নেতাকর্মীর কাছ থেকে ফোন পাই। তাদের ফোন পেয়ে আমাকে একটি সেল গঠন করতে হয়েছে। তারা বলছেন, তারা ভালো নেই, আমি যেন দায়িত্ব নেই। তাই জাতীয় পার্টিকে বাঁচাতে আমার পথচলা শুরু।

বিদিশা আরও বলেন, চক্রান্ত করে আমাকে জেলে পাঠানো হয়েছিল। সেখানে আমার ওপর অমানবিক নির্যাতন চালানো হয়েছিল। প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপে আমার কারামুক্তি সম্ভব হয়।

রওশন এরশাদের প্রতি সমর্থন জানিয়ে তিনি বলেন, আমি সবসময় চাই রওশন এরশাদ যেন আজীবন জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। তার নেতৃত্বে পার্টির বিরুদ্ধে সব ষড়যন্ত্র উপেক্ষা আমরা এগিয়ে যেতে চাই।

বিদিশা বলেন, সংসার জীবনে দেখেছি, এরশাদ বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে চিন্তা করতেন। তাকে নিয়ে ভাবতেন। সেই আদর্শ ধারণ করে আমার দুই ছেলেকে সঙ্গে করে সারাদেশে লাঙ্গল নিয়ে চষে বেড়াতে চাই। মানুষের অধিকার প্রতিষ্ঠায় সবার সঙ্গে থাকতে চাই।

বাংলাদেশ ন্যাশনাল কংগ্রেস আয়োজিত এ অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন শেখ শহিদুজ্জামান। আরও বক্তব্য রাখেন, কাজী মো. মামুনুর রশীদ, সাবেক মন্ত্রী এম. নাজিমুদ্দিন আল আজাদ, মোয়াজ্জেম হোসেন খান মজলিশ এবং আরও অনেকে।

নিউজটি শেয়ার করুন

ট্যাগস :

বিদিশা এরশাদ রাজনীতিতে আসছেন

আপডেট : ০৩:৪৬:২০ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৬ জুন ২০২১
::নিজস্ব প্রতিবেদক::

জাতীয় পার্টির প্রতিষ্ঠাতা ও প্রয়াত রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদের সাবেক স্ত্রী ও বিদিশা ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান বিদিশা এরশাদ রাজনীতির আসছেন। তার রাজনীতিতে আসার বিষয়টিও ইতিবাচক হিসেবে জাপার একাধিক কেন্দ্রীয় নেতা

শনিবার বিকেলে জাতীয় প্রেসক্লাবে এরশাদের দ্বিতীয় মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত স্মরণসভায় রাজনীতিতে প্রত্যক্ষভাবে অংশ নেওয়ার ঘোষণা দেন বিদিশা এরশাদ।

তিনি বলেন, জাতীয় পার্টির অনেক নেতাকর্মীর কাছ থেকে ফোন পাই। তাদের ফোন পেয়ে আমাকে একটি সেল গঠন করতে হয়েছে। তারা বলছেন, তারা ভালো নেই, আমি যেন দায়িত্ব নেই। তাই জাতীয় পার্টিকে বাঁচাতে আমার পথচলা শুরু।

বিদিশা আরও বলেন, চক্রান্ত করে আমাকে জেলে পাঠানো হয়েছিল। সেখানে আমার ওপর অমানবিক নির্যাতন চালানো হয়েছিল। প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপে আমার কারামুক্তি সম্ভব হয়।

রওশন এরশাদের প্রতি সমর্থন জানিয়ে তিনি বলেন, আমি সবসময় চাই রওশন এরশাদ যেন আজীবন জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। তার নেতৃত্বে পার্টির বিরুদ্ধে সব ষড়যন্ত্র উপেক্ষা আমরা এগিয়ে যেতে চাই।

বিদিশা বলেন, সংসার জীবনে দেখেছি, এরশাদ বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে চিন্তা করতেন। তাকে নিয়ে ভাবতেন। সেই আদর্শ ধারণ করে আমার দুই ছেলেকে সঙ্গে করে সারাদেশে লাঙ্গল নিয়ে চষে বেড়াতে চাই। মানুষের অধিকার প্রতিষ্ঠায় সবার সঙ্গে থাকতে চাই।

বাংলাদেশ ন্যাশনাল কংগ্রেস আয়োজিত এ অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন শেখ শহিদুজ্জামান। আরও বক্তব্য রাখেন, কাজী মো. মামুনুর রশীদ, সাবেক মন্ত্রী এম. নাজিমুদ্দিন আল আজাদ, মোয়াজ্জেম হোসেন খান মজলিশ এবং আরও অনেকে।