জাহাজভাঙা কারখানা বন্ধের ঘোষণা প্রত্যাহার

নিজস্ব প্রতিবেদক;
  • প্রকাশিত: ১০ নভেম্বর ২০২১, ১২:৪২ অপরাহ্ণ | আপডেট: ৪ সপ্তাহ আগে

ছবি সংগৃহীত

ভ্যাট কমিশনের অভিযানের প্রতিবাদে চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডের জাহাজভাঙা কারখানা অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধের ঘোষণা প্রত্যাহার হয়েছে।

বুধবার বিকেলে জাহাজভাঙা মালিকদের সংগঠন বাংলাদেশ শিপ ব্রেকার্স অ্যান্ড রিসাইক্লার্স অ্যাসোসিয়েশন (বিএসবিআরএ) এ ঘোষণা দেয়।

বৃহস্পতিবার সকাল থেকে কারখানা যথারীতি চালু হওয়ার কথা।

বিএসবিআরএর সহকারী সচিব নাজমুল ইসলাম এ তথ্য নিশ্চিত করে জানান, কোনো ধরনের নোটিশ ছাড়াই মঙ্গলবার চারটি কারখানায় অভিযান পরিচালনা করা হয়েছিল। ওই সময় কমিশনের তিনটি দল অভিযানের নামে কারখানাগুলোতে অফিসিয়াল কাগজপত্র তছনছ করেন। এছাড়া কারখানা থেকে বেশ কিছু নথি ও কম্পিউটার নগরের আগ্রাবাদের ভ্যাট কার্যালয়ে নিয়ে যায়। এ ঘটনার প্রতিবাদে বুধবার থেকে সব কারখানা বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছিল।

তিনি আরও বলেন, আজ (বুধবার) আমাদের সঙ্গে কর্তৃপক্ষের কথা হয়েছে। কর্তৃপক্ষের আশ্বাসে পূর্বঘোষিত কর্মসূচি প্রত্যাহার করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার সকাল থেকে সব কটি কারখানা চালু হবে।

গতকাল মঙ্গলবার দুপুর থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত সীতাকুণ্ডের ভাটিয়ারিতে চারটি জাহাজভাঙা কারখানায় অভিযান পরিচালনা করে ভ্যাট কমিশন।

এগুলো হলো, ভাটিয়ারি স্টিল শিপব্রেকিং ইয়ার্ড, প্রিমিয়ার ট্রেড করপোরেশন, মাহিনুর শিপব্রেকিং ইয়ার্ড ও এসএন করপোরেশন। এসময় ভ্যাট ফাঁকির অভিযোগে কারখানাগুলোর কার্যালয় থেকে বেশ কিছু নথি ও সরঞ্জাম জব্দ করা হয়।

বিএসবিআরএ সূত্রে জানা গেছে, সীতাকুণ্ড এলাকায় প্রায় ১৫০টি জাহাজভাঙা কারখানা রয়েছে। এর মধ্যে সচল অর্ধেকেরও কম কারখানা। সচল কারখানাগুলোতে অন্তত ২০ হাজার শ্রমিক কাজ করেন। কারখানা বন্ধ ঘোষণায় তারা বেকার হয়ে পড়েন।

শেয়ার করুন

এই সম্পর্কিত আরও খবর...