ছাত্রীকে এক বছর ধরে ধর্ষণ-ভিডিও ধারণ, শিক্ষক গ্রেপ্তার

গাজীপুর প্রতিনিধি;
  • প্রকাশিত: ১৭ নভেম্বর ২০২১, ১২:৪৩ অপরাহ্ণ | আপডেট: ২ সপ্তাহ আগে

ছবি সংগৃহীত

গাজীপুর মহানগরের কাশিমপুর থানা এলাকায় মাদ্রাসার এক শিশুছাত্রীকে (১৩) ধর্ষণ ও ধর্ষণের ভিডিও ধারণ করার অভিযোগে হাফিজিয়া মাদ্রাসার প্রিন্সিপাল মো. হাদিউজ্জামানকে (৩৮) গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

মঙ্গলবার দিবাগত রাতে ভুক্তভোগীর বাবা বাদী হয়ে মামলা দায়ের করলে প্রিন্সিপালকে গ্রেপ্তার করা হয়। পরে তার মোবাইল থেকে শিশুছাত্রীর নগ্ন ভিডিও ও ছবি জব্দ করা হয়েছে।

গ্রেপ্তার হাদিউজ্জামান যশোরের কেশবপুর উপজেলার মির্জাপুর সরদাপাড়া গ্রামের মৃত জাবেদ আলী সরদারের ছেলে। তিনি কাশিমপুর বাগবাড়ী এলাকায় দারুস সুন্নাহ নুরানী হাফিজিয়া মাদ্রাসার প্রিন্সিপাল।

মামলার এজাহারের বরাত দিয়ে কাশিমপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাহবুবে খোদা জানান, কাশিমপুর বাগবাড়ী এলাকায় দারুস সুন্নাহ নুরানী হাফিজিয়া মাদ্রাসার এক শিশু শিক্ষার্থীকে প্রায় এক বছর আগে ধর্ষণ করেন মাদ্রাসার প্রিন্সিপাল হাদিউজ্জামান। এ সময়ে তিনি কৌশলে ধর্ষণের দৃশ্যও ধারণ করেন। পরবর্তীতে ওই ধর্ষণের ধারণ করা ভিডিও ইন্টারনেটে ছড়িয়ে দেয়ার ভয় দেখাতেন। ভয় দেখিয়ে দীর্ঘ এক বছর ধরে বিভিন্ন সময়ে শিশুটিকে ধর্ষণ করে যাচ্ছিলেন ওই শিক্ষক। ওই শিক্ষকের দুই স্ত্রী এবং তাদের ঘরে সন্তান রয়েছে।

বিষয়টি শিশুটির পরিবার জানতে পেরে গত ১৬ নভেম্বর ওই ঘটনায় তার বাবা বাদী হয়ে কাশিমপুর থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা দায়ের করেন। ওইদিন রাতেই পুলিশ অভিযান চালিয়ে ধর্ষণের অভিযোগ হাদিউজ্জামানকে গ্রেপ্তার করে।

ওসি মাহবুবে খোদা জানান, গ্রেপ্তার করার সময় ধর্ষকের কাছ থেকে শিশু শিক্ষার্থীর নগ্ন ভিডিও, ছবি এবং একটি স্মার্টফোন জব্দ করা হয়েছে।

শেয়ার করুন

এই সম্পর্কিত আরও খবর...